টেকনাফে র‍্যাবের অভিযানে ১৫ কোটি টাকার ইয়াবাসহ আটক ২ রোহিঙ্গা

প্রধান প্রতিবেদক, নিউজ কক্সবাজার ডটকম

কক্সবাজারের টেকনাফ উপজেলার  হোয়াইক্যং ইউনিয়নের তুলাতলী মসজিদ সংলগ্ন ছড়া এলাকায় অভিযান চালিয়ে টি পাটের বস্তা থেকে ৩ লাখ ইয়াবা বড়ি এবং দুইজন রোহিঙ্গা পাচারকারীকে আটক করেছে র‍্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়ন (র‍্যাব-১৫)।

র‍্যাবের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে গোপন সূত্রের ভিত্তিতে শুক্রবার (১০ জুলাই) ভোর সাড়ে ৫টায় ইয়াবা বিক্রি খবর পেয়ে তারা এ অভিযানে যায়।

তারা বলছে পাটের বস্তায় তল্লাশি চালিয়ে সুকৌশলে লুকোন প্যাকেট করা ইয়াবা বড়ি তারা উদ্ধার করেছে।

র‍্যাব জানাচ্ছে দীর্ঘদিনের নিবিড় পর্যবেক্ষণ ও গোয়েন্দা অনুসন্ধানের ভিত্তিতে র‍্যাব-১৫ জানতে পারে, সংঘবদ্ধ অস্ত্রধারী মাদক ব্যবসায়ী চক্র ইয়াবার একটি বড় চালান নিয়ে যাচ্ছে। এমন সংবাদে র‍্যাব-১৫ সেখানে ফাঁদ ফেতে অবস্থান করে। এসময় র‍্যাবের উপস্থিতি টের পেয়ে তাদের হাতে থাকা দেশীয় লোহার তৈরি কিরিচ ব্যবহার করে দৌড়ে পালিয়ে যাওয়ার প্রাক্কালে র‍্যাব সদস্যরা ধাওয়া করে দুইজনকে আটক করে। তবে তাদের সাথে থাকা অপর তিন সহযোগী পালিয়ে যায়।

আটক পাচারকারীদের নাম বালুখালী ৮নং রোহিঙ্গা ক্যাম্পের ব্লক-এ-১৯ এর বাসিন্দা মোঃ ইলিয়াছের ছেলে মোঃ শফিক (২৫) এবং হোয়াইক্যং তুলাতলী ঘোনা পাড়ার আবুল কাশেমের ছেলে আব্দুল করিমকে (২২)।

উল্লেখ্য গতকাল র‍্যাব-১৫ কক্সবাজারের রামু উপজেলার হিমছড়ি এলাকায় অভিযান চালিয়ে প্লাস্টিকের বস্তা থেকে ৯০ হাজার ইয়াবা বড়ি এবং একজন পাচারকারীকে আটক করেছে।

উদ্ধারকৃত ইয়াবার মূল্য আনুমানিক ১৫ কোটি টাকা প্রায়। এই ব্যাপারে সংশ্লিষ্ট মাদক আইনের মামলায় উদ্ধারকৃত মাদকসহ ধৃত মাদক পাচারকারীদের টেকনাফ মডেল থানায় সোপর্দ করা হয়েছে এবং পলাতক আসামীদের গ্রেফতারের  চেষ্টা অব্যাহত আছে বলে জানান র‍্যাব-১৫ এর সহকারী পুলিশ সুপার (মিডিয়া) আবদুল্লাহ মোহাম্মদ শেখ সাদী।

আপনার মন্তব্য দিন