টেকনাফ সীমান্তে বিজিবি মাদক কারবারীদের মধ্যে গুলি বিনিময়; ৩০ হাজার ইয়াবা উদ্ধার

মিজানুর রহমান, (টেকনাফ) কক্সবাজার। 

কক্সবাজার জেলার টেকনাফ সীমান্তে বিজিবি ও মাদক কারবারীদের মধ্যে গুলি বিনিময়ের ঘটনা ঘটেছে। এসময় ঘটনাস্থল থেকে ৩০ হাজার পীচ ইয়াবা উদ্ধার করতে সক্ষম হয়েছে বিজিবি। তবে মাদক কারবারীকে আটক করা যায়নি। উদ্ধারকৃত ইয়াবার আনুমানিক মুল্য ৯০ লাখ টাকা বলে জানিয়েছে বিজিবি। 

বৃহস্পতিবার (১২ অগাস্ট) রাত আনুমানিক ১১ টার দিকে টেকনাফ উপজেলার সাবরাং ইউনিয়নের আচারবুনিয়া এলাকায় এই ঘটনা ঘটে। 

অভিযানের সত্যতা নিশ্চিত করেছেন টেকনাফ ব্যাটালিয়ন (২ বিজিবি) অধিনায়ক লেঃ কর্ণেল মোহাম্মদ ফয়সল হাসান খান। 

তিনি জানান, সাবরাং ইউনিয়নের আচারবুনিয়া এলাকা দিয়ে মিয়ানমার হতে ইয়াবার একটি বড় চালান বাংলাদেশে পাচার হতে পারে এমন গোপন সংবাদে কয়েকটি দলে বিভক্ত হয়ে বিজিবি সতর্ক অবস্থান নেয়। 

আনুমানিক রাত ১১ টার দিকে ১ জন দুষ্কৃতিকারীকে নাফ নদী ও বেড়ীবাঁধ পার হয়ে খালের কিনারা দিয়ে ১টি প্লাস্টিকের বস্তা কাঁধে করে আচারবুনিয়া গ্রামের দিকে যেতে দেখে। তখনই টহলদল দুষ্কৃতকারীকে ধরার জন্য খুব দ্রুত অগ্রসর হয় । বিজিবি টহলদলের উপস্থিতি অনুধাবন করে সশস্ত্র ইয়াবা পাচারকারী বিজিবি সদস্যদের উপর অতর্কিতভাবে গুলি বর্ষণ করতে থাকে। বিজিবিও সরকারী সম্পদ এবং জান মাল রক্ষার্থে পাল্টা গুলি বর্ষণ করে। বিজিবি টহলদলের পাল্টা গুলি বর্ষণে ইয়াবা কারবারী গুলিবিদ্ধ অবস্থায় নদীতে ঝাঁপিয়ে পড়লে ভাঁটার টানে পানিতে ডুবে দ্রুত স্থানান্তরিত হয়ে যায়। 

পরিবর্তীতে উক্ত স্থানে দুষ্কৃতকারীর ফেলে যাওয়া ১ টি প্লাস্টিকের ব্যাগ তল্লাশী করে ৩০ হাজার পীচ ইয়াবা পাওয়া যায়। 

সরকারী কর্তব্যে বাঁধা প্রদান এবং অবৈধ মাদক পাচারের দায়ে অজ্ঞাত দোষী ব্যক্তির বিরুদ্ধে প্রয়োজনীয় আইনী কার্যক্রম চলমান রয়েছে বলেও জানিয়েছেন বিজিবির এই কর্মকর্তা।

আপনার মন্তব্য দিন