রামুতে বন বিভাগের হেডম্যানকে কুপিয়ে-গুলি করে হত্যা

রামুতে বন বিভাগের হেডম্যানকে কুপিয়ে-গুলি করে হত্যা

সারাদেশ ডেস্ক

কক্সবাজারের রামুর জোয়ারিয়ানালা ইউনিয়নের দুর্গম পাহাড়ি এলাকা ব্যাঙডেবা গ্রামে বন বিভাগের হেডম্যান আলী আহমদকে কুপিয়ে হত্যা করেছে দুর্বৃত্তরা।

রোববার (১৬ জানুয়ারি) রাত ২টার দিকে এ ঘটনা ঘটে। নিহত আলী আহমদ দীর্ঘদিন কক্সবাজার উত্তর বন বিভাগের জোয়ারিয়াবালা ব্যাঙডেবা এলাকায় বন রক্ষায় অসামান্য অবদান রেখে আসছিলেন। তিনি ছয় সন্তানের জনক।

গ্রামবাসী জানায়, ৩০ জনের অধিক দুর্বৃত্ত আলী আহমদের ব্যাঙডেবার বাড়িতে প্রবেশ করে তাকে কুপিয়ে ও গুলি করে হত্যা করে। খবর পেয়ে রামু থানা পুলিশ সকালে মরদেহ উদ্ধার করে।

কক্সবাজার উত্তর বন বিভাগের স্পেশ্যাল টিমের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) ও সদর রেঞ্জার এ কে এম আতা এলাহী বলেন, নিহত আলী আহমেদ বন বিভাগের হেডম্যান হিসেবে যুক্ত হওয়ার পর থেকে বন রক্ষায় সদা তৎপর ছিলেন। তিনি ছিলেন বন ও পাহাড়খেকোদের আতঙ্ক। বনকর্মীদের সঙ্গে বেশ কয়েকবার বনখেকোদের তাড়িয়েছেন আলী আহমদ। এ কারণে বন ও পাহাড়খেকোদের চক্ষুশূল ছিলেন তিনি।

তিনি আরও জানান, গত রাতে দুর্বৃত্তরা ব্যাঙডেবা বন অফিসের বাহিরের দরজায় তালা ঝুলিয়ে দেয়। এতে ভেতরে আটকা পড়েন বনকর্মীরা। আলী আহমদের বাড়িতে হামলার শব্দ পেলেও অস্ত্র থাকার পরও তাকে উদ্ধারে কেউ যেতে পারেনি।

জোয়ারিয়ানালা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান কামাল শামসুদ্দিন আহমেদ প্রিন্স বলেন, এটি মর্মান্তিক ঘটনা। আলী আহমদের হত্যাকাণ্ডের ঘটনায় ক্ষুব্ধ গ্রামবাসী ঘটনার সুষ্ঠু তদন্ত এবং হত্যাকারীদের চিহ্নিত করে আইনের আওতায় আনার দাবি জানিয়েছেন।

রামু থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আনোয়ারুল ইসলাম বলেন, ময়নাতদন্তের জন্য মরদেহ কক্সবাজার সদর হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। দুর্বৃত্তদের ধরতে অভিযান চলছে।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published.